• রবিবার, ০১ অগাস্ট ২০২১, ০৪:১২ অপরাহ্ন

বাড়ীঘর ভাংচুরের অভিযোগে থানায় আবেদন

  • আপডেট টাইম : সোমবার, ২৮ জুন, ২০২১
  • ৮৯

বাংলারজমিন২৪.কম ডেস্কঃ

নেত্রকোনার পূর্বধলায় স্বামীহারা অসহায় নারীর বাড়ীঘর ভাংচুরের অভিযোগে থানায় আবেদন নেত্রকোনা জেলার পূর্বধলা উপজেলায় জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে বাড়ীঘর ভাংচুরের অভিযোগ এনে স্বামীহারা অসহায় নারী ন্যায় বিচার চেয়ে পূর্বধলা থানার শ্যামগঞ্জ পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রে লিখিত আবেদন দায়ের করেছে।

লিখিত অভিযোগে প্রকাশ, নেত্রকোনা জেলার পূর্বধলা উপজেলার নারান্দিয়া ইউনিয়নের ভূগী গ্রামের মৃত লুৎফুর রহমানের স্ত্রী নাছিমা বেগমের সাথে তারই প্রতিবেশী মৃত ফয়েজ উদ্দিনের পুত্র নজরুল ইসলামের বাড়ীর সীমানা নিয়ে বিরোধ চলে আসছিল।

এরই জের ধরে নজরুল ইসলাম গংরা ২৬ জুন দুপুরে নাছিমা বেগমের অনুপুস্থিতে তার বাড়ীতে অবৈধ অনুপ্রবেশ করে বসত বাড়ী ভাংচুর করে।

এ সময় ঘরে থাকা নাছিমার কলেজ পড়ুয়া মেয়ে ভয়ে আতংকে তার মাকে মোবাইলে ফোন দিয়ে কান্না কাটি করতে থাকে। নাছিমা ফোন পেয়ে দ্রুত বাড়ীতে এসে প্রতিপক্ষের লোকজনকে ভাংচুর করতে বাঁধা দিলে তারা তাকে প্রাণে মেরে ফেলার হুমকি দিয়ে চলে যায়।

এরপর থেকে স্বামীহারা মহিলা তার কলেজ পড়ুয়া মেয়েকে নিয়ে চরম নিরাপত্তাহীনতায় ভূগছে। অসহায় নাছিমা বেগম পূর্বধলা থানার শ্যামগঞ্জ পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ বরাবরে লিখিত অভিযোগ দায়ের করে জীবনের নিরাপত্তা ও ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত পূর্বক হামলাকারী বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়ার জোর দাবী জানান।এ ব্যাপারে শ্যামগঞ্জ পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ মোঃ আসাদুজ্জামানের সাথে যোগাযোগ করলে তিনি বলেন, বাড়ীঘর ভাংচুর নয়, ঘরের বেড়া সরিয়ে ফেলা হয়েছে। তদন্ত পূর্বক আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।

ইকবাল হাসান।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..