• বৃহস্পতিবার, ০১ অক্টোবর ২০২০, ০৩:৩৫ অপরাহ্ন

ব্রেকিং নিউজ :

হাটহাজারীতে ভূয়া চিকিৎসকের সন্ধান, ফার্মেসি সিলগালা ও জরিমানা

  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ১ অক্টোবর, ২০২০

মাহমুদ আল আজাদ , হাটহাজারী(চট্টগ্রাম) প্রতিনিধিঃ-

হাটহাজারী উপজেলাতে ভূয়া চিকিৎসকের হিড়িক পড়েছে।যত্রতত্র গ্রাম-গঞ্জে,সদরে,সড়ক,মহা-সড়কের পাশে চেম্বার খুলে বসে আছেন এমবিবিএস ডাক্তার।ভূয়া সার্টিফিকেট তৈরী করে ফার্মেসিতেই বসে চিকিৎসা সেবা দিয়ে যাচ্ছে অনেক প্রতারক।নানা প্রতারনার স্বীকার হচ্ছে অনেক জনসাধারন।তাদের চিকিৎসা সেবাতে উল্টো অনেক রোগে ভোগছেন অনেকেই।এমনি এক ভূয়া চিকিৎসকের সন্ধান পেয়ে অভিযান পরিচালনা করেন উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) শরীফ উল্লাহ।

বুধবার(৩০সেপ্টেম্বর) বিকেল ৪টার দিকে হাটহাজারী উপজেলার কাটিরহাট বাজারে আমানত ফার্মেসিতে অভিযান পরিচালনা করে ভূয়া চিকিৎসক প্রমানিত হয়। তার শিক্ষাগত যোগ্যতার ভূয়া সার্টিফিকেট, প্যাড,ও ড্রাগ লাইসেন্স জব্দ করা হয়। ডাক্তারী পেশার যে শিক্ষাগত যোগ্যাতার প্রয়োজন তার কোন কাগজপত্র দেখাতে পারেনি প্রতারক চিকিৎসক। চিকিৎসা সেবা নিতে আসা রোগীদের সাথে প্রতারনার অপরাধে সংশ্লিষ্ট আইনে শাহ আমানত ফার্মেসীকে সিলগালা করা হয়েছে। ফার্মেসীর সাইন বোর্ড ধ্বংস করা সহ ৩০হাজার টাকা জরিমানা করা হয় ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করে। উক্ত ফার্মেসীর দোকানী ভূয়া চিকিৎসক গিয়াস উদ্দিন(৩০)কেও মুছলেখা নিয়ে ছেড়ে দেয়া হয়।

এ বিষয়ে উপজেলা সহকারী কমিশনার(ভূমি) শরীফ উল্লাহ জানান, প্রতি নিয়ত এক শ্রেনীর লোভী ভূয়া চিকিৎসক যত্রতত্র ফার্মেসী খুলে দিয়ে নানা রোগী সেবা গ্রহীতাদের সাথে প্রতারনা করে আসছে।একদিকে তারা অর্থ হারাচ্ছে অন্যদিকে বিভিন্ন রোগ আক্রান্তে হুমকির মুখে পড়ছে।অসাধু ভূয়া ডাক্তার সেজে নানা প্রতারনার অভিযোগ পেয়ে ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করে শাহ আমানত ফার্মেসী নামের এক দোকানীকে জরিমানা, অবৈধ প্যাড,ভূয়া ড্রাগ লাইসেন্স জব্দ সহ ফার্মেসীটিকে সিলগালা করা হয়েছে।জনস্বার্থে এ অভিযান অব্যাহত থাকবে। এসময় মডেল থানার পুলিশের এস আই আরিফুজ্জামান সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে উপস্থিত ছিলেন।

Facebook Comments

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..