• মঙ্গলবার, ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৮:১৪ পূর্বাহ্ন

মেঘনায় দুই লঞ্চের সংঘর্ষে মা-ছেলে নিহত, আহত ১০

  • আপডেট টাইম : সোমবার, ১৩ জানুয়ারী, ২০২০
  • ১৫৬

বাংলারজমিন২৪/অনলাইন ডেস্কঃ মধ্যরাতে মেঘনা নদীতে দুই লঞ্চের সংঘর্ষে এক নারী ও তার সাত বছরের ছেলের মৃত্যু হয়েছে। আহত হয়েছেন অন্তত ১০ যাত্রী। নিহতরা হলেন- বরিশালের বাকেরগঞ্জ উপজেলার গারুরিয়া ইউনিয়নের রুবেল খান আব্বাসের স্ত্রী মাহমুদা বেগম (২৮) ও তার ছেলে মমিন খান (৭)।

নিহত দুজনসহ আহত তিনজন কীর্তনখোলা-১০ লঞ্চের যাত্রী। বাকি আহতরা ফারহান-৯ লঞ্চের যাত্রী। ফারহান ৯ লঞ্চের ধাক্কায় কীর্তনখোলা-১০ লঞ্চটি দুমড়ে-মুচড়ে গেছে। গতকাল রোববার রাত আনুমানিক দেড়টার দিকে ঢাকা-বরিশাল নৌপথের মেঘনা নদীর মাঝেরচর এলাকায় এই দুর্ঘটনা ঘটে।

দুর্ঘটনার সময় লঞ্চের নিচতলার ডেকে স্ত্রী-সন্তানকে নিয়ে ঘুমিয়ে ছিলেন রুবেল খান। সংঘর্ষে ঘটনাস্থলেই মারা যান স্ত্রী মাহমুদা ও ছেলে মমিন।

গতকাল রাত ৯টার দিকে কীর্তনখোলা-১০ লঞ্চটি বরিশাল থেকে ঢাকা ছেড়ে যায়। অপরদিকে ফারহান-৯ লঞ্চটি ঢাকা থেকে পিরোজপুরের ভাণ্ডারিয়ার হুলারহাট যাচ্ছিলো।

লঞ্চটির ম্যানেজার মোঃ বেলাল আরটিভি অনলাইনকে জানান, ঢাকা থেকে ছেড়ে আসা ফারহান-৯ লঞ্চ মেঘনা নদীর মাঝেরচর এলাকায় পৌছালে কুয়াশায় দুই লঞ্চের সংঘর্ষ হয়। এতে কীর্তনখোলা লঞ্চের দুই যাত্রী নিহত ও তিন যাত্রী আহত হন। আহতদের চাঁদপুরে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। নিহতদের পরিচয় পাওয়া যায়নি। তবে তলদেশ অক্ষত থাকায় সেটি ঢাকার উদ্দেশে রওনা করেছে।

ফারহান-৯ লঞ্চের কেরাণী মোঃ আল আমিন আরটিভি অনলাইনকে জানান, কুয়াশার কারণে তাদের লঞ্চ দুর্ঘটনা কবলিত হয় এবং ৫ জন যাত্রী আহত হন।

Facebook Comments

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..