• বুধবার, ১৩ নভেম্বর ২০১৯, ০৯:৪৬ অপরাহ্ন

শাওমি মোবাইলঃ তরুণ প্রজন্মের নতুন পছন্দ

  • আপডেট টাইম : বুধবার, ৩০ অক্টোবর, ২০১৯
  • ৪৩ বার পঠিত

শাওমি মোবাইলঃ তরুণ প্রজন্মের নতুন পছন্দ
শাওমি মোবাইল কিনুন

কানিজ ফাতেমা/বাংলারজমিন২৪কম

কয়েক বছর আগেও আমরা যে মোবাইল ফোন ব্র্যান্ডের নামটি ঠিকভাবে উচ্চারণ করতে পারতাম না, আজ সেই ফোনের সিগনেচার রিংটোনটি শোনা যায় আশেপাশে সর্বত্র। চাইনিজ প্রতিষ্ঠান শাওমি বাংলাদেশী টেকনোলজি মার্কেটে ইতিমধ্যেই অন্যতম প্রধাণ ফোন ব্র্যান্ড হিসেবে নিজেদের প্রতিষ্ঠিত করেছে। আকর্ষণীয় ফিচারের নতুন সব মডেল, অ্যাপ্লায়েন্স ও গ্যাজেট প্রকাশের মাধ্যমে খুব অল্প সময়েই পুরোনো ও প্রতিষ্ঠিত ব্র্যান্ডগুলোকে টেক্কা দিচ্ছে শাওমি। বাকিদের সঙ্গে শাওমির পার্থক্য হলো এটি বেশ অল্প বাজেটেই ব্যবহারকারীদের কাছে পৌঁছে দিচ্ছে হাই কোয়ালিটির নানা ফোন। হার্ডওয়্যার ও সফটওয়্যার দু’দিকেই সেরা ব্র্যান্ডগুলোর গুণগত মানের কাছাকাছি করে ফোনগুলো তৈরি করা ও দারুন সব ফিচারের কারণে বর্তমানে শাওমি পরিণত হয়েছে তরুণ প্রজন্মের অন্যতম পছন্দের ব্র্যান্ডে।

পেছনের কিছু কথা

শাওমির আজকের এই উত্থানের পেছনের গল্পটা জেনে আসা যাক। শাওমি ব্র্যান্ডটি প্রতিষ্ঠা করেন প্রাক্তন কিংসফট এর প্রধাণ নির্বাহী লেই জুন। তবে শুরুতেই তারা কিন্তু ব্যবহারকারীদের জন্য ফোন নিয়ে আসেনি। শুরুটা হয় মিউই নামের অ্যান্ড্রয়েড বেইজড একটি অপারেটিং সিস্টেম বানানোর মাধ্যমে। এটি প্রকাশের পর টেক দুনিয়ায় রীতিমত আলোড়ন পড়ে যায় যা তাদেরকে নিজস্ব ডিভাইস তৈরিতে উদ্বুদ্ধ করে। তখন থেকেই বিভিন্ন মডেলের মোবাইল ফোন বাজারে নিয়ে আসে ব্র্যান্ডটি। শাওমি ব্র্যান্ডটির ফোনগুলোর মূলত দুইটি ধরণ রয়েছে। একটি হলো এমআই সিরিজ যেটি কিছুটা প্রিমিয়াম গ্রাহকদের জন্য তৈরি হয়েছে ও এর দামও কিছুটা বেশি। অপর সিরিজটির নাম রেডমি সিরিজ যাতে ব্যবহারকারীরা পায় স্বল্পমূল্যে ডিজাইনের নানা বৈচিত্র্যতা। ফোন ছাড়া অন্যান্য গ্যাজেটেও শাওমি টেক প্রেমীদের সুনাম কুড়াতে সক্ষম হয়েছে। এমআই ব্র্যান্ডের রয়েছে জনপ্রিয় গ্যাজেট – ফিটনেস ট্র্যাকার। শাওমির হেডফোনগুলোর মানও ভালো হবার কারণে এগুলো গ্রাহক মহলে বেশ সমাদৃত। এছাড়াও এমআই পাওয়ার ব্যাঙ্ক, ওয়াইফাই এক্সটেনশন, ওয়ারলেস ফোন চার্জার ইত্যাদি গ্যাজেটগুলোও দেশের বাজারে জনপ্রিয়।

শাওমির ফোনগুলির কিছু ভালো দিক

চলুন দেখে নেই শাওমির স্মার্টফোনগুলোতে কি কি ফিচারগুলো রয়েছে।

উল্লেখ্যঃ আর্টিকেলে উল্লেখিত মোবাইলের দামগুলো বিক্রেতা ও ডিলারভেদে তারতম্য হতে পারে।

শাওমি রেডমি কে২০ প্রো

শাওমি রেডমি কে২০ প্রো কিনুন

এটি শাওমির প্রকাশিত সাম্প্রতিকতম মডেলের ফোন যা ইতিমধ্যেই বাজারে সাড়া ফেলে দিয়েছে। এটির পেছনদিকে রয়েছে একটি ব্যতিক্রমী ডিজাইন ও চমকপ্রদ কিছু স্পেসিফিকেশন।

বিবরণ
নেটওয়ার্ক সিম ডুয়েল সিম (ন্যানো সিম, ডুয়েল স্ট্যান্ড বাই)
বডি ডাইমেনশনস ১৫৬.৭ x ৭৪.৩ x ৮.৮ মিমি (৬.১৭ x ২.৯৩ x ০.৩৫ ইঞ্চি)
ডিসপ্লের ধরন সুপার অ্যামোলেড ক্যাপাসিটিভ টাচস্ক্রিন, ১৬ মি. কালারস
ডিসপ্লের আকার ৬.৩৯ ইঞ্চি, ১০০.২ সিএম২
ডিসপ্লের রেজ্যুলেশন ১০৮০ x ২৩৪০ পিক্সেল, ১৯ঃ৫ঃ৯ অনুপাত
ডিসপ্লে স্ক্রিন সুরক্ষা কর্নিং গরিলা গ্লাস ৫
অপারেটিং সিস্টেম (ওএস) অ্যান্ড্রয়েড
ওএস ভার্সন ৯.০ (পাই)
সিপিইউ অক্টা-কোর
জিপিইউ এডরেনো ৫৪০
চিপসেট কুয়ালকম এসডিএম৮৫৫ স্ন্যাপড্রাগন ৮৫৫
ইন্টারনাল মেমোরি ৬৪ জিবি, ১২৮ জিবি, ২৫৬ জিবি
এক্সটার্নাল মেমোরি নেই
র‍্যাম ৬ জিবি, ৮ জিবি
প্রাথমিক ক্যামেরা ট্রিপলঃ ৪৮ মেগাপিক্সেল
১৩ মেগা পিক্সেল (আল্ট্রাওয়াইড)

৮ মেগা পিক্সেল, ২x অপ্টিকাল জুম

সেকেন্ডারি ক্যামেরা মোটরাইজড পপ-আপ ২০ মেগা পিক্সেল
ব্যাটারি ৪০০০ মিলি অ্যাম্পেয়ার ব্যাটারি
মূল্য ৪৯,৯৯৯ টাকা
যদি আপনি এমন ফোন খুঁজে থাকেন যেটি আপনি দীর্ঘদিন ব্যবহার করতে পারেন তবে অবশ্যই এই ফোনটিই হবে আপনার সেরা পছন্দ। পপ আপ ক্যামেরা, ফুল স্ক্রিন ডিসপ্লে ও অবিশ্বাস্য ক্যামেরা কোয়ালিটি ফোনটিকে করেছে এক কথায় অনবদ্য।

শাওমি এমআই এ২ ও এ২ লাইট

এটি শাওমির একটি প্রিমিয়াম সিরিজ যা বাজারে এসেছে বেশ কিছু অনন্য স্পেসিফিকেশন নিয়ে। আমরা এই আর্টিকেলটিতে আলোচনা করবো জনপ্রিয় দুটি মডেল এমআই এ২ ও এ২ লাইট নিয়ে।

শাওমি এমআই এ২

শাওমি এমআই এ২ কিনুন

বিবরণ
নেটওয়ার্ক সিম ডুয়েল সিম (ন্যানো সিম, ডুয়েল স্ট্যান্ড বাই)
বডি ডাইমেনশনস ১৫৮.৭ x ৭৫.৪ x ৭.৩ মিমি (৬.২৫ x ২.৯৭ x ০.২৯ ইঞ্চি)
ডিসপ্লের ধরন এলটিপিএস আইপিএস এলসিডি ক্যাপাসিটিভ টাচস্ক্রিন, ১৬ মি. কালারস
ডিসপ্লের আকার ৫.৯৯ ইঞ্চি, ৯২.৬ সিএম২
ডিসপ্লের রেজ্যুলেশন ১০৮০ x ২১৬০ পিক্সেল, ১৮ঃ৯ অনুপাত
অপারেটিং সিস্টেম (ওএস) অ্যান্ড্রয়েড- অ্যান্ড্রয়েড ওয়ান
ওএস ভার্সন ৮.১ (ওরিও), অ্যান্ড্রয়েড ৯.০ (পাই) পর্যন্ত আপগ্রেডেবল, অ্যান্ড্রো
সিপিইউ অক্টা কোর
জিপিইউ এডরেনো ৫১২
চিপসেট কুয়ালকম এসডিএম৬৬০ স্নাপড্রাগন ৬৬০ (১৪ ন্যানোমিটার)
ইন্টারনাল মেমোরি ৩২ জিবি, ৬৪ জিবি, ১২৮ জিবি
এক্সটার্নাল মেমোরি নেই
র‍্যাম ৪ জিবি, ৬ জিবি র‍্যাম
প্রাথমিক ক্যামেরা ডুয়েলঃ ১২ মেগা পিক্সেল, এফ/১.৮, ১/২.৯
সেকেন্ডারি ক্যামেরা ২০ মেগা পিক্সেল, এফ/২.২, ১/২.৮
সেন্সর ফিঙ্গারপ্রিন্ট (রেয়ার মাউন্টেড), অ্যাক্সিলেরোমিটার, জাইরো, প্রক্সিমিটি, কম্পাস
ব্যাটারি ৩০০০ মিলি অ্যাম্পেয়ার ব্যাটারি
মূল্য ২৩,৯৯৯ টাকা
যেই ফিচারটি এই ফোনকে বাকিদের থেকে এগিয়ে রাখছে তা হলো এর অ্যান্ড্রয়েড ওয়ান ইন্টারফেস। জানিয়ে রাখা ভালো, অ্যান্ড্রয়েড ওয়ান বর্তমানে গুগল অ্যান্ড্রয়েড এর অন্যতম সেরা ভার্সন। মিউই এর বদলে ব্যবকারকারীরা এই ফোন থেকে পাবেন খাঁটি অ্যান্ড্রয়েড অপারেটিং সিস্টেম ব্যবহারের অভিজ্ঞতা। শাওমি ফোন, সঙ্গে আসল অ্যান্ড্রয়েড, ব্যাপারখানা বেশ জমেছে তাইতো?

Facebook Comments

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..