• সোমবার, ১৮ অক্টোবর ২০২১, ০১:০৯ অপরাহ্ন

যুক্তরাষ্ট্র আফগানদের অর্থ ফিরিয়ে দেবে না

  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ১৪ অক্টোবর, ২০২১
  • ১৬

বাংলারজমিন২৪.কম ডেস্কঃ

আফগানিস্তানে দিন দিন প্রকট হচ্ছে মানবিক সংকট। দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতি এবং মানুষের হাতে অর্থ না থাকা পরিস্থিতিকে আরও জটিল করে তুলছে। এমন করুণ পরিস্থিতিতেও যুক্তরাষ্ট্র আফগানদের অর্থ ফিরিয়ে দেবে না বলে আবারও সাফ জানিয়ে দিয়েছে। তবে জি-টোয়েন্টি নেতারা দেশটিতে মানবিক সহায়তা বাড়ানোর আশ্বাস দিয়েছেন। যদিও তালেবানের সঙ্গে কাজ করতে রাজি নন তারা।

চরম অর্থনৈতিক সংকটে ভুগছে আফগানিস্তান। মানুষের হাতে অর্থ নেই। যারা কাজ করছেন, তারা পাচ্ছেন না বেতন। কেনাকাটা করতে পারছেন না প্রয়োজনীয় কোনো কিছুই। তাই বাজারে মানুষ নেই। সব মিলিয়ে বেগতিক দশা।

এমন সংকটময় অবস্থার মধ্যেই জি-টোয়েন্টি নেতারা জরুরি ভিত্তিতে ভার্চুয়াল বৈঠক করেছেন। সেখানে উঠে এসেছে মানবিক সংকট কীভাবে দূর করা যায় সে বিষয়টি। ইতালির আয়োজিত এ সম্মেলনে অন্যদের মধ্যে অংশ নিয়েছিলেন জাতিসংঘ মহাসচিব, যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট, কানাডার প্রধানমন্ত্রীসহ জি-টোয়েন্টি জোটভুক্ত ইউরোপিয়ান দেশগুলোর নেতারা।

সম্মেলনে ইতালির প্রধানমন্ত্রী মারিও দ্রাঘি বলেছেন, আফগান নাগরিকদের সাহায্য করা সহজ নয়। আফগানিস্তান অনেক বড় দেশ। এ জন্য চাই নিয়ন্ত্রক তালেবানের সাহায্য। কিন্তু বিশ্ব সম্প্রদায় কেন তালেবানের সঙ্গে কাজ করবে? তাদের স্বীকৃতিই দেওয়া হয়নি।

এমন করুণ অবস্থার মধ্যেই যুক্তরাষ্ট্রের পক্ষ থেকে ফের জানানো হয়েছে, আফগানিস্তানের আটকে রাখা অর্থ ফেরত দেওয়া হবে না। তবে ঘোষণা করা হয়েছে, ৬ কোটি ৪০ লাখ ডলার সহায়তার।

তবে জাতিসংঘ চটেছে, আফগান নারী ও মেয়ে শিশুদের দেওয়া প্রতিশ্রুতি তালেবান ভেঙেছে বলে। তালেবানকে স্বীকৃতি পেতে হলে কথা রাখতে হবে বলেও জানায় সংস্থাটি।

এদিকে দেশটিতে মৌলবাদ নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করে, তা ঠেকানোর আহ্বান জানিয়েছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।

 

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..