• মঙ্গলবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৫:২৮ পূর্বাহ্ন

ভয়ংকর ক্ষেপণাস্ত্র রাশিয়া থেকে আবারো কিনবে তুরস্ক

  • আপডেট টাইম : মঙ্গলবার, ২৪ আগস্ট, ২০২১
  • ৩৬

বাংলারজমিন২৪.কম ডেস্কঃ

তুরস্ক এবং রাশিয়া এস-ফোর হান্ড্রেড ক্ষেপণাস্ত্র প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা নিয়ে নতুন একটি চুক্তি করতে যাচ্ছে বলে জানিয়েছে ইরানের সংবাদ মাধ্যম পার্সটুডে।
তারা জানায়, এই চুক্তির অধীনে আঙ্কারা মস্কোর কাছ থেকে নতুন করে আরও কিছু এস-ফোর হান্ড্রেড ক্ষেপণাস্ত্র প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা কিনবে।

পার্সটুডে জানায়, রাশিয়ার অস্ত্র রপ্তানিকারক সংস্থা রোজোবোরোনেক্সপোর্ট-এর প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা আলেকজান্ডার মিখেয়েভ সোমবার(২৩ আগস্ট) এ তথ্য দিয়েছেন। তিনি বলেন, মধ্যম থেকে দীর্ঘ পাল্লার ক্ষেপণাস্ত্র প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা নিয়ে তুরস্কের সঙ্গে শিগগিরই নতুন করে একটি চুক্তি সই হবে।
আলেকজান্ডার মিখেয়েভ আরো জানান, ‘বিষয়টি নিয়ে আঙ্কারার সঙ্গে আলোচনা চলছে এবং চূড়ান্ত পর্যায়ে রয়েছে। আমাদের এ মিত্রের সঙ্গে চুক্তির আনুষ্ঠানিকতা শিগগিরই শুরু করব।’
তুরস্কে অনুষ্ঠিত আন্তর্জাতিক সামরিক প্রদর্শনীর প্রশংসা করে আলেকজান্ডার মিকেয়েভ বলেন, এটি রাশিয়ার জন্য সফল ছিল, প্রদর্শনী থেকে মস্কো অনেক অস্ত্র এবং সামরিক সরঞ্জাম বিক্রির প্রস্তাব পেয়েছে।

এদিকে এস-৪০০ ক্ষেপণাস্ত্র প্রতিরক্ষা ব্যবস্থার পরীক্ষা তুরস্ক ও যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যে উত্তেজনা শুরুর কারণ হতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে। মস্কোর কাছ থেকে আঙ্কারা এই প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা কেনার তীব্র বিরোধিতা করে আসছে ওয়াশিংটন।
যুক্তরাষ্ট্র মনে করে ন্যাটো প্রতিরক্ষা জোটের সদস্য হয়েও তুরস্ক মস্কোর কাছ ক্ষেপণাস্ত্র প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা কেনায় নিরাপত্তা ঝুঁকি তৈরি হতে পারে।গত বছর রাশিয়ার এস-৪০০ ক্ষেপণাস্ত্র প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা তুরস্কের হাতে আসার পর আঙ্কারাকে এফ-৩৫ যুদ্ধ বিমান কর্মসূচি থেকে বের করে দেয় যুক্তরাষ্ট্র। তুরস্কের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপের হুমকিও দেওয়া হয়।
উল্লেখ্য, ২০১৭ সালে রাশিয়ার সঙ্গে এস-৪০০ ক্ষেপণাস্ত্র চুক্তি স্বাক্ষর করে তুরস্ক। গত বছরের জুলাইতে আড়াইশ’ কোটি ডলার মূল্যের চারটি ক্ষেপণাস্ত্র ব্যাটারির সরবরাহ শুরু হয়। প্রাথমিকভাবে তুরস্কের পক্ষ থেকে জানানো হয়ছিল ২০০০ সালের এপ্রিল থেকে এস-৪০০ সক্রিয় করা হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..